রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:০৪ অপরাহ্ন
সর্বশেষ সংবাদঃ
সর্বশেষ সংবাদঃ
মাগুরায় পুলিশের অভিযানে দুইটি চোরাই মোটরসাইকেল সহ আটক তিন মহম্মদপুরে ৩২ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট সহ পুলিশের হাতে আটক ১ মহম্মদপুরে দেশীয় অস্ত্র সহ ডাকাত দলের সদস্য গ্রেফতার শ্রীপুরে বিশেষ আয়োজনে ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে ব্যতিক্রমী আয়োজনের মধ্য দিয়ে শেষ হলো মাগুরা রিপোর্টার্স ইউনিটের বাৎসরিক আনন্দ ভ্রমণ শেষ পৌষের কনকনে শীতে কাঁপছে মাগুরা! মাগুরার মহম্মদপুরে শতবর্ষী ঐতিহ্যবাহী বড়রিয়ার মেলা শুরু! মাগুরার শ্রীপুরে পুলিশের বিশেষ অভিযানে ১০ (দশ) কেজি গাজা উদ্ধার। মাগুরার জনগণ নির্বিঘ্নে উৎসব মুখর পরিবেশে ভোট দিতে পারবে – পুলিশ সুপার মাগুরায় জমে উঠেছে ফুটপাতের শীতের পিঠা! মাগুরা মহম্মদপুরে জোড়া খুনের ঘটনায় ২৪ ঘন্টার মধ্যে মূল আসামী গ্রেফতার” মহম্মদপুরে আপন দুই ভাইয়ের গলাকাটা লাশ উদ্ধার আটক-২ মাগুরায় ব্রিজের নিচে হতে উদ্ধারকৃত কঙ্কালের রহস্য উদঘাটন সহ মূল আসামি গ্রেফতার। ঝরে পড়া ৩০ শিশুকে স্কুলে ফেরাল জেলা প্রশাসক মাগুরা শালিখায় অসহায়, দুঃস্থ ও প্রতিবন্ধীদের মাঝে “এক পেট আহার অত:পর হাসি” এর পক্ষ থেকে খাবার বিতরণ প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে শেষ হলো শারদীয় দুর্গাপূজা ২০২৩ মাগুরার মহম্মদপুরে পুজা মন্ডপ পরিদর্শন ও অনুদান বিতরণ মাগুরা জেলার তিন উপজেলা নির্বাহী অফিসারগনের বিদায় এবং সদ্য তিন উপজেলা নির্বাহী অফিসারগনের যোগদান উৎসবমুখর পরিবেশে চলছে বরেন্দ্র প্রেসক্লাবের নির্বাচন ইসলামী ব্যাংক কামারখালী বাজার আউটলেটের গ্রাহক সমাবেশ অনুষ্ঠিত
Notice :
প্রিয় পাঠক   দৈনিক মাগুরার কথা   অনলাইন নিউজ পোর্টালে আপনাকে স্বাগতম । গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য মন্ত্রণালয়ের নিয়ম মেনে বস্তু নিষ্ঠ তথ্য ভিত্তিক সংবাদ প্রচার করতে আমরা বদ্ধ পরিকর ।  বি:দ্র : এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা,  ছবি ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি । এখানে ক্লিক করুণ Apps  

কেশবপুরে ইরি বোরো ধানের বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা কৃষকের মুখে হাসি

আজিজুর রহমান, কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি / ২১৫ বার পঠিত হয়েছে।
নিউজ প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৭ এপ্রিল, ২০২২, ১০:৫৬ অপরাহ্ন

কেশবপুরে ইরি বোরো ধানের বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা দেখা দেওয়ায় কৃষকের মুখে সোনালী হাসি ফুটেছে।মাঠে কৃষকদের জমিতে রোপন করা ইরি বোরো ধান পাঁকা শুরম্ন হয়েছে।
ইতিমধ্যে কিছু কৃষকরা মাঠের জমির ধান কাটতে শুরম্ন করেছে বলে দেখা গেছে।আগামী ৬/৭দিন পর থেকে অনেক কৃষক তাদের জমিতে রোপন করা ইরি বোরো ধান কাটতে শুরম্ন করবে।চলতি বছরে ইরি বোরো মৌসুমের ধান উৎপাদনের লÿ্য নিয়ে উপজেলার বিভিন্ন অঞ্চলের কৃষকরা মাঠের জমিতে বিভিন্ন জাতের ধানের চারা রোপন করে ছিলেন।আর এই ইরি বোরো আবাদের খরচ কমাতে পুরম্নষের পাশাপাশি নারীরাও ইরি বোরো ধান রোপনে কাজে ব্যাপক সহযোগিতা করে ছিলেন।বুধবার ও বৃহস্পতিবার সারাদিন উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে গিয়ে দেখা গেছে কৃষকরা তাদের রোপন করা ইরি বোরো আবাদের জমির ÿেতে ধানের পরিচার্যা নিয়ে ব্যস্ত্ম হয়ে পড়েছেন।এ সোনার ফসল ঘরে তুলতে রাতদিন কৃষকরা এখনো জমিতে পরিচার্যার কাজ করে যাচ্ছেন।কেশবপুর উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে এবার চলতি বছরে বোরো ধান মৌসুমে এ উপজেলায় ১৪ হাজার ৫শ ২০হেক্টর জমিতে ইরি বোরো ধান চাষের লÿ্য মাত্রা নির্ধারন করা হয়েছে। জমিতে ইরি বোরো ধান চাষ করার জন্য ৭শ হেক্টর বীজতলায় চারা ফেলানো হয়েছিলো।মৌসুমের শুরম্ন থেকে আবহাওয়া ভালো ও জমিতে পানি সেচ,সার,সময়মত ব্যবহার করার ফলে ভালো ফলনের আশা করেছেন কৃষকরা।এ বছর বীজতলায় চারা নষ্ট হওয়ার তেমন কোন সংবাদ পাওয়া যায়নি। কৃষকরা ইরি বোরো ধান হিসেবে ইাইব্রিড ধান ৪৬শত ২০ হেক্টর ও উপশী ৯হাজার ৯শত হেক্টর জমিতে ধান রোপন করেছে কৃষকরা।কেশবপুর উপজেলার ১১ টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভা ঘুরে দেখা গেছে কৃষকরা ইরি বৌরো ধান রোপনের কাজে ব্যস্ত্ম সময় পার করে ছিলেন।এই উপজেলায় প্রতিবছর ইরি বৌরো ধানের ব্যাপক বাম্পার ফলন হয়ে থাকে।কৃষকরা বিপুল পরিমান ফলন উৎপাদন করে অত্রাঞ্চলের খাদ্য চাহিদা পূরণের পরেও ধান দেশের বিভিন্ন স্থানে সরবরাহ করে থাকে।দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টি হলেও কেশবপুরে এখনও তেমন পরিস্থিতি না হওয়ায় কৃষকরা কোমর বেঁধে পুরাদমে মাঠে নেমে পড়ে ছিলেন ইরি বোরো ধান রোপনের কাজে। এলাকার কৃষকরা জানান,বর্তমানে কেশবপুর উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের গ্রামে গ্রামে মাঠে বোরো ধান রোপন শুরম্ন হওয়ায় থেকে চারা সংকটের কোন সম্ভাবনা ছিলো না।এ বছর অনেক কৃষকরা তাদের লÿ্য মাত্রা অনুযায়ী জমিতে ধান রোপন করেও চারা বিত্রম্নয় করতে পেরেছে বলে এলাকার কৃষক হাকিম সরদার,আছিন সরদার,জামাল সরদার,ইসলাম গাজী,লফিত গাজী,নুর ইসলাম দফাদার,আনার আলী খাঁসহ অনেক কৃষকরা জানিয়েছেন।তারা আরো জানান,চলতি বছরে ইরি বোরো ধানের বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা দেখা দেওয়ায় কৃষকের মুখে সোনালী হাসি ফুটেছে।ইতিমধ্যে কিছু কৃষকরা মাঠের জমির ধান কাটতে শুরম্ন করেছে।মাঠের অনেক কৃষকের জমির ধান পাকা শুরম্ন হয়েছে, আগামী ৬/৭দিন পর থেকে অনেক কৃষক তাদের জমিতে রোপন করা ধান কাটতে শুরম্ন করবে। কোন প্রকৃতি দুর্যোগ না হলে সময় মত কৃষকরা তাদের মাঠের ধান কেটে ঘরে তুলতে পারবে।এ ব্যাপারে উপজেলা কৃষি অফিসার ঝতুরাজ সরকার বলেন,কৃষি অফিস থেকে কৃষকদের বীজতলায় চারা তৈরী করার ব্যাপারে ভালো পরামর্শ দেওয়া হয়েছিল।যার কারণে চারাও ভালো হয়েছে। ফলে সুন্দর ভাবে কৃষকরা তাদের জমিতে বোরো ধান রোপন করতে পেরেছেন। এ ছাড়াও যে কোন সমস্যা সমাধানের জন্য কৃষি অফিস সব সময় কৃষকদের পাশে থাকবে। এ উপজেলায় ১৪ হাজার ৫শ ২০হেক্টর জমিতে বোরো ধান চাষের লÿ্য মাত্রা নির্ধারন করা হয়েছে। কোন প্রকৃতি দুর্যোগ না হলে সময় মত কৃষকরা তাদের মাঠের ধান কেটে ঘরে তুলতে পারবে। কেশবপুর উপজেলায় প্রতিবছর বোরো ধানের ব্যাপক বাম্পার ফলন হয়ে থাকে।


এই বিভাগের আরও খবর
এক ক্লিকে বিভাগের সবখবর
error: Content is protected !!
error: Content is protected !!