বুধবার, ১৭ জুলাই ২০২৪, ০৩:০৬ অপরাহ্ন
সর্বশেষ সংবাদঃ
সর্বশেষ সংবাদঃ
মহম্মদপুরে বৃদ্ধকে জনসম্মুখে মাথা ন্যাড়াসহ গোঁফ কেটে দেওয়ার অপরাধে ত্রিনাথ শীলকে আটক করেছে পুলিশ মহম্মদপুরের দীঘা ইউনিয়নের দীঘা গ্রামে স্বামী -স্ত্রী বিষ পান করে আত্মহত্যার চেষ্টা – ভিভিও লিংক বন্ধুকে হত্যা করে, বন্ধুর বাইকেই ঘুরে বেড়াল তার বান্ধবীকে নিয়ে। মাগুরা রিপোর্টার্স ইউনিটির নতুন সদস্য সংগ্রহের জন্য প্রাথমিক সদস্য ফরম বিতরণের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে। মহম্মদপুরের চাকুলিয়ায় আকস্মিক হামলায় আহত ৬ বাড়িঘর ভাঙচুর লুটপাট ! মাগুরার শ্রীপুরে ১০ কেজি গাঁজাসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক মাগুরা রিপোর্টার্স ইউনিটির কমিটি ভেঙ্গে, আহ্বায়ক কমিটি গঠন মহম্মদপুরে কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত মাগুরা রিপোর্টার্স ইউনিটির ঈদ পুনর্মিলন উদযাপন গ্রিন মাগুরা ক্লিন মাগুরা আন্দোলনের ঘোষণা দিলেন জেলা প্রশাসক মহম্মদপুরে বেসরকারি ভাবে আ:মান্নান চেয়ারম্যান নির্বাচিত মহম্মদপুরে ছাত্র-ছাত্রী বিহীন চলছে এমপিও প্রতিষ্ঠান ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদ সাধারণ নির্বাচন উপলক্ষে বিশেষ আইন-শৃঙ্খলা সভা অনুষ্ঠান মাগুরায় পুলিশের অভিযানে দুইটি চোরাই মোটরসাইকেল সহ আটক তিন মহম্মদপুরে ৩২ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট সহ পুলিশের হাতে আটক ১ মহম্মদপুরে দেশীয় অস্ত্র সহ ডাকাত দলের সদস্য গ্রেফতার শ্রীপুরে বিশেষ আয়োজনে ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে ব্যতিক্রমী আয়োজনের মধ্য দিয়ে শেষ হলো মাগুরা রিপোর্টার্স ইউনিটের বাৎসরিক আনন্দ ভ্রমণ শেষ পৌষের কনকনে শীতে কাঁপছে মাগুরা! মাগুরার মহম্মদপুরে শতবর্ষী ঐতিহ্যবাহী বড়রিয়ার মেলা শুরু!
Notice :
প্রিয় পাঠক   দৈনিক মাগুরার কথা   অনলাইন নিউজ পোর্টালে আপনাকে স্বাগতম । গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য মন্ত্রণালয়ের নিয়ম মেনে বস্তু নিষ্ঠ তথ্য ভিত্তিক সংবাদ প্রচার করতে আমরা বদ্ধ পরিকর ।  বি:দ্র : এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা,  ছবি ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি । এখানে ক্লিক করুণ Apps  

কেশবপুরে বেঁচে থেকেও ‘মৃত’ নুরজাহান: বঞ্চিত হলেন ভাতা

আজিজুর রহমান, কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি / ২০৫ বার পঠিত হয়েছে।
নিউজ প্রকাশ : শনিবার, ৫ ফেব্রুয়ারী, ২০২২, ৮:১৯ অপরাহ্ন

 

কেশবপুরে নুরজাহান খাতুন (৭১) নামে এক জীবিত বৃদ্ধাকে মৃত দেখানোয় হচ্ছেন ভাতা বঞ্চিত। ভাতার টাকার বার্তা মোবাইলে এলেও ওই বৃদ্ধা সেটি উত্তোলন করতে পারেননি। এতে চরম বিপাকে পড়েছেন তিনি। উপজেলা সমাজসেবা অফিসের ভুলেই তার নাম মৃতের তালিকায় গেছে এমনটি অভিযোগ ভুক্তভোগী পরিবারের।
\হনুরজাহান খাতুন উপজেলার সাগরদাঁড়ি ইউনিয়নের ঝিকরা গ্রামের মৃত মহসীন সরদারের স্ত্রী।বয়স্ক ভাতা বই ও পরিবার সূত্রে জানা গেছে, ২০১৯ সালের জানুয়ারি মাসে বয়স্ক ভাতায় ভাতাভোগী হিসেবে নুরজাহান খাতুনের নাম অন্তর্ভুক্ত হয়। বই নম্বর- ৬/৬১/ক। প্রতিমাসে পাঁচশ টাকা হারে তিনি ২০১৯ সালের ২৯ ডিসেম্বর প্রথমবার বয়স্ক ভাতার টাকা উত্তোলন করেন। পর্যায়ক্রমে সর্বশেষ ২০২১ সালের ৪ এপ্রিল তিনি ভাতা উত্তোলন করেছেন। এরপরে মোবাইলে ভাতার টাকার বার্তা আসলেও তিনি উত্তোলন করতে দেরি করায় ওই ভাতার টাকা ফেরত চলে গেছে। পরে মোবাইলে আর কোন বার্তা না আসায় পরিবারের পক্ষ থেকে উপজেলা সমাজসেবা অফিসে যোগাযোগ করলে জানতে পারেন তাঁর নাম মৃত ব্যক্তির তালিকায় রয়েছে। এ কারণে তিনি দীর্ঘ ৯ মাস তার ভাতার টাকা উত্তোলন করতে পারেননি। এছাড়া গত দুই বারের ভাতার টাকা উত্তোলন না করায় সেটিও তিনি আর ফিরে পাবেন না।নুরজাহান খাতুনের পোতা ছেলে আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, মোবাইলে দাদির টাকার মেসেজ (বার্তা) না আসায় সমাজসেবা অফিসে যোগাযোগ করা হলে তারা জানান-‘আমার দাদির নাম নাম মৃতের তালিকায় চলে গেছে। জীবিত ব্যক্তির নাম কীভাবে মৃত ব্যক্তির তালিকায় গেল জানতে চাইলে সমাজসেবা অফিসার বলেছেন ‘দ্রম্নত এটি সংশোধন করে দেওয়া হবে।’ তবে আমার দাদি গত দু’বারের ভাতার টাকা আর পাবেন না সমাজসেবা অফিস থেকে জানানো হয়েছে।’ উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা বজলুর রশীদ বলেন, ‘আমাদের ডাটাবেজে নুরজাহান খাতুন নামে ওই বৃদ্ধা জীবিত তালিকায় রয়েছে।’ উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা বজলুর রশীদ বলেন, ‘আমাদের ডাটাবেজে নুরজাহান খাতুন নামে ওই বৃদ্ধা জীবিত তালিকায় রয়েছে।’ এ ব্যাপারে উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মুহা. আলমগীর হোসেন বলেন, ভাতাভোগীরা মারা যাওয়ার কারণে প্রতি ৩ মাস অন্তর রিফ্রেশমেন্ট হয়। সাত থেকে আট মাস আগে রিফ্রেশমেন্ট করার সময় নুরজাহানের জায়গায় অন্য একজনের নাম ঢুকে গেছে। নুরজাহানের নামটি ভুলক্রমে নিষ্‌িক্রয় বা মৃত ব্যক্তির তালিকায় চলে যায়। তার পরিবারের পক্ষ থেকে সম্প্রতি অফিসে বিষয়টি জানালে সমাধানের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। তিনি আরও জানান, নুরজাহান খাতুন গত দুই বারের ভাতার টাকা উত্তোলন না করায় ওই টাকা উত্তোলনের ক্ষেত্রে জটিলতা রয়েছে।


এই বিভাগের আরও খবর
এক ক্লিকে বিভাগের সবখবর
error: Content is protected !!
error: Content is protected !!